হংকংয়ে বিক্ষোভকারীদের ভাংচুরের নিন্দা লামের

31

আঞ্চলিক পার্লামেন্ট ভবনে বিক্ষোভকারীদের ভাংচুরের ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন হংকংয়ের শীর্ষ নির্বাহী ক্যারি লাম। সোমবার রাতের ওই ঘটনাকে ‘সহিংসতার চরম ব্যবহার’ হিসেবেও অ্যাখ্যা দিয়েছেন তিনি। ব্রিটিশদের কাছ থেকে চীনের হাতে হংকংয়ের হস্তান্তরের ২২ বছর পূর্তির দিনে শহরটির একদল বিক্ষোভকারী অঞ্চলটির আইন পরিষদ কয়েক ঘণ্টা দখলে রেখে সেখানে ভাংচুর চালায় বলে জানিয়েছে বিবিসি।
একটি শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ থেকে দলছূট হওয়া একদল বিক্ষোভকারী আইন পরিষদে হানা দিয়েছিল। বিতর্কিত একটি বহিঃসমর্পণ বিল নিয়ে গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই হংকংয়ে অস্থিরতা চলছে। তীব্র বিক্ষোভের মুখে গত মাসে সরকার ওই বিল পাসের পরিকল্পনা স্থগিত করার পর বিলটি আর উত্থাপন করা হবে না বলে ধারণা করা হচ্ছে। গণতন্ত্রপন্থি বিক্ষোভকারীরা সরকারের এ পদক্ষেপেও সন্তুষ্ট নয়; তারা বিলটি বাতিলের ঘোষণার পাশাপাশি শীর্ষ নির্বাহী ক্যারি লামের পদত্যাগেরও দাবি জানিয়ে আসছে। পুলিশ কাঁদানে গ্যাস ছুড়ে আইনপরিষদ দখলমুক্ত করার পর মঙ্গলবার ভোররাতে এক সংবাদ সম্মেলনে লাম বিক্ষোভকারীদের সহিংস আচরণের তীব্র নিন্দা জানান। পুলিশ কমিশনার লো ওয়াই চুংকে পাশে নিয়ে তিনি বলেন, “আইন পরিষদে ঢুকে পড়ার ঘটনাটি এমন একটি ঘটনা জোরালেভাবে যার নিন্দা করা উচিত আমাদের, কারণ হংকংয়ে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কিছুই আর হতে পারে না।”
১৯৯৭ সালের ১ জুলাই যুক্তরাজ্য হংকংকে চীনের হাতে হস্তান্তর করে। প্রতি বছর এদিনে গণতন্ত্রপন্থিরা শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ করে। বিতর্কিত ওই বহিঃসমর্পণ বিল নিয়ে কয়েক সপ্তাহের অস্থিরতায় এবার বর্ষপূর্তির দিনটি ঘিরে আগে থেকেই উত্তেজনা বিরাজ করছিল। বিলটি পাস হলে তা দিয়ে ভিন্নমতের রাজনীতিকদের আধা-স্বায়ত্তশাসিত হংকং থেকে চীনের মূল ভূখÐে বিচারের জন্য পাঠিয়ে দেয়া সম্ভব হতো বলে আশঙ্কা সমালোচকদের। অন্য বছরগুলোর মতো এদিনও শুরুতে গণতন্ত্রপন্থিদের বিক্ষোভ ছিল শান্তিপূর্ণ। হস্তান্তরের বর্ষপূর্তিতে পতাকা উত্তোলনের এক অনুষ্ঠানকেন্দ্রের আশপাশের রাস্তা আটকে তারা প্রতিবাদ দেখায়।
পতাকা উত্তোলনের ওই অনুষ্ঠানে ক্যারি লামও উপস্থিত ছিলেন। দুপুরের দিকে একদল বিক্ষোভকারী মূল কর্মসূচি থেকে সরে এসে আইনপরিষদের দিকে রওনা হয়। কাঁচের ফটক ভেঙে তারা যখন পার্লামেন্ট ভবনটি দখল করে নেয় তখনও কয়েকশ বিক্ষোভকারী খানিকটা দূরে দাঁড়িয়ে তা দেখছিল।
সহিংস বিক্ষোভকারীরা এরপর আইন পরিষদের কেন্দ্রীয় অংশে হংকংয়ের প্রতীকটি নষ্ট করে দেয়, ব্রিটিশ উপনিবেশ আমলের পতাকা উত্তোলন করে, দেয়ালজুড়ে স্প্রে দিয়ে বিভিন্ন বার্তা লেখে এবং ভেতরের আসবাবপত্র ভাংচুর করে। প্রায় মধ্যরাতে ভবনের সামনে প্লাস্টিকের হেলমেট পরা ও হাতে ছাতা ধরা বিক্ষোভকারীরা দাঙ্গা পুলিশের লাঠি চার্জের মুখে পিছুঁ হটে। দাঙ্গা পুলিশ দ্রæতই বিক্ষোভকারীদের অস্থায়ী বাধাগুলো সরিয়ে সেখানে অবস্থান নেয়।