সরকারি কোষাগার থেকে শতভাগ বেতন-ভাতার দাবি

51

বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির আহŸানে সরকারি কোষাগার হতে পৌরসভার কর্মকর্তা কর্মচারীদের শতভাগ বেতন ভাতা প্রদানসহ পেনশন প্রথা চালু এবং জনপ্রতিনিধিদের সম্মানি ভাতা প্রদানের দাবিতে গতকাল সোমবার সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত সারাদেশের বিভিন্ন পৌরসভায় অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। প্রতিনিধিদের পাঠানো তথ্য নিয়ে প্রতিবেদনটি তৈরি করা হলো।
চকরিয়া : চকরিয়া পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশনের অবস্থান কর্মসূচি চলাকালে পৌরসভার প্রধান ফটক বন্ধ ছিল। পৌরসভার সকল কর্মকর্তা কর্মচারী এ কর্মসূচিতে অংশ নেন। বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এ্যাসোসিয়েশন কক্সবাজার জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক জাহেদ উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও কেন্দ্রীয় কমিটির প্রচার সম্পাদক রাজিবুল মোস্তফার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন চকরিয়া পৌরসভার সচিব মাসউদ মোরশেদ, উপসহকারী প্রকৌশলী মৃনাল কান্তি ধর, বিভাগীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক জহিরুল মাওলা, চকরিয়া পৌরসভা কর্মচারী এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোস্তাক আহামদ, সাধারণ সম্পাদক আরিফুল মোস্তফা, উচ্চমান সহকারী ওসমান গনি, টিকাদানকারী মিনহাজ উদ্দিন, অফিস সহকারী আব্দুল হামিদ প্রমুখ।
বান্দরবান : বান্দরবানের দুইটি পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মবিরতিতে পৌরসভার সকল বিভাগের কাজকর্ম বন্ধ থাকায় ভোগান্তিতে পড়েন সেবাপ্রার্থীরা। বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন বান্দরবান জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ জানান,দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত এই কর্মসূচি চলতে থাকবে। একই দাবিতে লামা পৌরসভার সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী এই কর্মসূচি পালন করছে। এই কর্মবিরতি চলবে আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যা পর্যন্ত।
কর্মবিরতিতে অংশ নেয় বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশনের বান্দরবান জেলা শাখার সভাপতি মং শৈ খৈ মারমা, সহসভাপতি মো. তৌহিদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম মজুমদার, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. হোসেন এবং লামা পৌরসভার সার্ভিস এসোসিয়েশনের সভাপতি মো. তানফিজুর রহমান, সহ-সভাপতি মোহাম্মদ শহীদুল করিম, সাধারণ সম্পাদক নুর মোহাম্মদসহ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
চন্দনাইশ : সকাল ১১টা হতে চন্দনাইশ পৌরসভা কার্যালয়ে এ ধর্মঘট অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন চন্দনাইশ পৌরসভা সার্ভিস এসোসিয়েশন এর সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার লুৎফুর রহমান। সাধারণ সম্পাদক মো. সেলিম উদ্দিনের সঞ্চালনায় আলোচনায় অংশ নেন মো. আরিফ মঈন উদ্দিন, মো. মনিরুজামান, মো. রেজাউল করিম, মো. আহমদ হোসেন, মো. আজম খাঁন, মো. সাখাওয়াত হোসেন, মো. হেলাল উদ্দিন, মো. মাহাবুবুর রহমান, মোছা. বুলবুল আক্তার প্রমুখ।
পটিয়া : পটিয়া পৌরসভার সচিব মোহাম্মদ মহসিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন পটিয়া সার্ভিস এসোসিয়েশন কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সহসভাপতি সহকারী প্রকৌশলী মিজানুর রহমান খন্দকার, উপ সহকারী প্রকৌশলী মোহাম্মদ শাহজাহান, প্রশাসনিক কর্মকর্তা করুণা কান্তি বড়–য়া, প্রধান সহকারী শহীদুল ইসলাম।
লামা : বাংলাদেশ পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারী এ্যাসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে এ কর্মবিরতি পালন করেন তারা। কর্মবিরতির কারণে প্রশাসনিকভাবে ভোগান্তিতে পড়েন পৌরবাসী। কর্মবিরতিতে পৌরসভার সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীরা স্বতস্ফূর্তভাবে অংশ গ্রহণ করেন। এতে পৌরসভার প্যানেল মেয়র মোহাম্মদ হোসেন বাদশা ও কাউন্সিলর মো.সাইফুদ্দিন সংহতি প্রকাশ করে বলেন, পৌরসভা কর্মকর্তা কর্মচারীদের দাবি যৌক্তিক। তাদের দাবি মেনে নিয়ে রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে বেতন ভাতা প্রদান করা হলে পৌরসভায় স্থানীয়ভাবে যে রাজস্ব আয় হয়, তা দিয়ে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকাণ্ড বাস্তবায়ন করা যাবে। এদিকে কর্মবিরতির কারণে জন্ম নিবন্ধন, জাতীয়তা সনদসহ বিভিন্ন সেবা নিতে আসা সাধারণ মানুষকে ফেরত যেতে হয়েছে।
কর্মবিরতী পালনকালে লামা পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারী এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক নূর মোহাম্মদ বলেন, রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে শতভাগ বেতন-ভাতা ও পেনসন প্রথা চালু করতে হবে।