প্রবীণদের সুরক্ষায় ‘প্রবীণ উন্নয়ন ফাউন্ডেশন’ গঠন করার আহবান

5

সিনিয়র সিটিজেন ফোরাম আয়োজিত ‘প্রবীণ নাগরিকদের নাগরিক অধিকার সুরক্ষা: প্রেক্ষাপট বাংলাদেশ’ শীর্ষক সেমিনার গত শনিবার বিকেল ৪টায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সুলতান আহমদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। সেমিনারে বক্তারা দেশের প্রবীণদের কল্যাণ ও তাদের কর্মক্ষমতা কাজে লাগাতে এবং সামাজিক, অর্থনেতিক, সাংস্কৃতিক কর্মকাÐে তাদের যুক্ত করতে নানা পদক্ষেপ ও কর্মসূচি নেয়ার আহবান জানান। এ লক্ষ্যে বক্তারা প্রবীণ উন্নয়ন ফাউন্ডেশন গঠন করার ঘোষণা চলতি বাজেট আলোচনার সময় দিতে সরকারের প্রতি দাবি জানান।
শিক্ষাবিদ ড. রণজিৎ কুমার চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে মূল প্রবন্ধ পড়েন সিনিয়র সাংবাদিক সুভাষ দে। আলোচনায় অংশ নেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগের প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রফেসর লে. কর্ণেল (অব.) ড. এম শফিকুল আলম, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং এর শিক্ষক প্রফেসর ড. আদনান মান্নান, এপোলো ইমপেরিয়াল হাসপাতাল চট্টগ্রাম এর ডেপুটি চিফ মেডিক্যাল সার্ভিস ডা. মোহাম্মদ ফজলে ই-আকবর চৌধুরী, প্রবীণ নাগরিক ফোরাম চট্টগ্রাম এর উপদেষ্টা আমিনুর রশীদ কাদেরী, চিটাগাং ড্রাইডক লিমিটেড এর প্রাক্তন ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার এনামুল বাকী, সড়ক ও জনপথ বিভাগের প্রাক্তন উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী প্রবীর চন্দ্র সাহা প্রমুখ। সভা সঞ্চালনা করেন প্রকৃতি পত্রিকার সম্পাদক মুশফিক হোসাইন। সভার প্রারম্ভে সিনিয়র সিটিজেন ফোরাম এর ৪ জন প্রবীণ সদস্যের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ ও দাঁড়িয়ে ১ মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।
বক্তারা প্রবীণদের সেবা দিতে সরকারি ও বেসরকারি সংস্থাগুলোর কাজের মধ্যে সমন্বয়, প্রবীণ বান্ধব প্রশাসন ও সমাজ গড়ে তোলা এবং প্রবীণদের স্বাস্থ্য ও সামাজিক সুরক্ষায় ভাতা বৃদ্ধিসহ বিশেষ কর্মসূচি নিতে দাবি জানান। জাতীয় প্রবীণ নীতিমালা, পিতামাতার ভরণ পোষণ আইনের কার্যকর প্রয়োগ নিশ্চিত করার কথা তারা বলেন। বক্তারা প্রবীণদের মর্যাদা, কল্যাণ ও সুরক্ষায় সমাজের সকল বয়সী মানুষের সহযোগিতা ও সহমর্মিতা এবং প্রবীণদের অবসরের পর তাদের কর্মক্ষমতা কাজে লাগাতে সরকারের বিশেষ পরিকল্পনা থাকা প্রয়োজন বলে উল্লেখ করেন। বিজ্ঞপ্তি