কর্মবিরতিতে আটকে গেছে চবির ১ম বর্ষের উদ্বোধনী ক্লাস

7

চবি প্রতিনিধি

সার্বজনীন পেনশন স্কিম বাতিলের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সর্বাত্মক কর্মবিরতি চলমান রয়েছে। যার ফলে দেশের অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশাপাশি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়েও (চবি) ক্লাস-পরীক্ষাসহ সব ধরণের দাপ্তরিক কাজ বন্ধ রয়েছে। এতে আটকে গেছে ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে অনার্স প্রথম প্রথম বর্ষে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের উদ্বোধনী ক্লাস।
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে অনার্স প্রথম বর্ষে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরু হওয়ার কথা ছিল গত ৩০ জুন। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের চলমান কর্মবিরতির ফলে চবির কোনো বিভাগেই প্রথম বর্ষের ক্লাস শুরু করা যায়নি। উদ্বোধনী ক্লাস না হওয়ায় হতাশা প্রকাশ করতে দেখা গেছে নতুন ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের।
ইংরেজি বিভাগে ভর্তি হওয়া আরাফাত হোসেন নামে এক শিক্ষার্থী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ক্লাস নিয়ে অনেক বেশি আগ্রহী ছিলাম। ভর্তি হবার পর থেকেই অপেক্ষা করতেছিলাম যে কখন ক্লাস শুরু হবে। ক্লাস করার জন্য বাড়ি থেকে চলেও এসেছি। কিন্তু ৩০ জুন আমাদের ক্লাস হবার কথা থাকলেও শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের আন্দোলনের কারণে আমাদের ক্লাস আটকে গেছে। আসলে কবে শুরু হবে সে বিষয়ও জানিনা। এ অবস্থায় আমাদের মধ্যে হতাশা কাজ করতেছে।
মোহাম্মদ পরাগ নামে আধুনিক ভাষা ইন্সটিটিউটে ভর্তি হওয়া আরেক শিক্ষার্থী বলেন, শিক্ষক-কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের আন্দোলনের কারণে আমাদের ক্লাস হয়নি। কবে হবে সে বিষয়েও আমাদের কিছু জানানো হয়নি। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ক্লাস নিয়ে আমাদের অনেক প্রত্যাশা ছিল। আমরা বাড়ি থেকে ক্যাম্পাসে এসে বসে আছি, অথচ আমাদের সেই ক্লাসই হচ্ছে না। বিষয়টি অত্যন্ত হতাশার।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে, বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রার ও ভর্তি কমিটির সচিব এস এম আকবর হোছাইন বলেন, ক্লাস শুরুর বিষয়টা বিভাগের চেয়ারম্যান ও ফ্যাকাল্টির ডিনদের উপর। উনারা কর্মবিরতি পালন করার কারণে ক্লাস শুরু করা যায়নি। বিভাগের চেয়ারম্যান ও ফ্যাকাল্টির ডিনগণ যখন চাইবেন তখন ক্লাস শুরু করতে পারবেন।