কক্সবাজারে পিটিআই প্রশিক্ষণার্থী পেকুয়ার শিক্ষিকার মৃত্যু

4

পেকুয়া প্রতিনিধি

পিটিআই ট্রেনিংএ গিয়ে ঘরে ফেরা হলো না শিক্ষিকার। এমন মৃত্যু মেনে নিতে পারছে শিক্ষকসহ বিভিন্ন পেশাজীবী মানুষ। মৃত্যুর খবরে পুরো এলাকায় নেমে এসেছে শোকের ছায়া। কক্সবাজারে প্রাইমারি টিচার্স প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (পিটিআই) প্রশিক্ষণরত এক শিক্ষিকার মৃত্যু হয়েছে। গত শুক্রবার সকালে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ওই শিক্ষিকা মৃত্যু বরণ করেন। শিক্ষিকা নাসরিন সুলতানা (৩০) পেকুয়া উপজেলার টইটং ইউনিয়নের উত্তর পূর্ব সোনাইছড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা। তিনি উপজেলার বারবাকিয়া ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের বারাইয়াকাটা পূর্ব সবজীবন পাড়া এলাকার মৃত্যু মোহাম্মদ আলমের মেয়ে।
শিক্ষিকার বড় ভাই নাছির উদ্দীন জানান,পিটিআই প্রশিক্ষণ অবস্থায় অসুস্থ হলে কর্তৃপক্ষ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। ডাক্তারদের দেয়া তথ্য মতে আমার বোনের ফুসফুসে কফ জমে যাওয়া তাকে আইসিইউতে রাখেন, গতকাল সকালে আমার বোন মৃত্যুবরণ করে।
জানা যায়, ২০২৩ সালে নাসরিন সুলতানা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারি শিক্ষিকা হিসেবে নিয়োগ প্রাপ্ত হয়ে একই বছর জানুয়ারি মাসে উত্তর পূর্ব সোনাইছড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগদান করেন। ২০২৪ শিক্ষাবর্ষে জানুয়ারিতে বিটিপিটি প্রশিক্ষণের জন্য কক্সবাজার জেলা প্রাইমারি টিচার্স প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (পিটিআই) প্রশিক্ষণে অংশ গ্রহণ করেন।
এবিষয়ে কক্সবাজার জেলা প্রাইমারি টিচার্স ইনস্টিটিউট (পিটিআই) এর সুপার আবদুর রউফ মুঠোফোনে বলেন, শিক্ষিকা নাসরিন সুলতান অসুস্থ হলে হোস্টেল অবস্থানরত প্রশিক্ষণার্থী শিক্ষকরা হাসপাতালে নিয়ে যায়, গতকাল সকালে তিনি মারা যান। তিনি ২০২৪ শিক্ষাবর্ষে ‘খ’ শাখার রোল নং ৪৯ প্রশিক্ষণার্থী ছিলেন। তিনি ব্যক্তি জীবনে অবিবাহিত বলে পারিবারিক সূত্রে জানা যায়।
গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে পাঁচটার দিকে বারইয়াকাটা সবজীবন পাড়া জামে মসজিদ প্রাঙ্গণে উক্ত শিক্ষিকার নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয় এবং পরে সবজীবন পাড়া পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।