উত্তর গাজায় তীব্র লড়াই চলছে

5

ইসরায়েলের সংবাদপত্র হারেৎজ জানিয়েছে, গাজা ভূখন্ডের উত্তর দিকে প্রবল লড়াই চলছে। রোববার রাতে ইসরায়েলের সেনা জাবালিয়ায় আক্রমণ চালায়। ইসরায়েলের সেনাবাহিনীর মুখপাত্র এর আগে জানিয়েছিলেন, ইসরায়েলের যুদ্ধবিমান জাবালিয়ার বিভিন্ন লক্ষ্যবস্তুতে বোমা ফেলছে। জাবালিয়া খুবই ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা। সেখানে শরণার্থী শিবিরও রয়েছে। সাধারণ মানুষকে এলাকা থেকে চলে যেতে বলা হয়েছিল। টাইমস অব ইসরায়েল রোববার জানায়, ইসরায়েল প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ) এক থেকে দেড় লাখ ফিলিস্তিনিকে জাবালিয়া এলাকা থেকে চলে যেতে বলেছে।
জাবালিয়ায় হামাসের সঙ্গে ইসরায়েলি বাহিনীর তীব্র লড়াই হচ্ছে। হামাসকে সন্ত্রাসবাদী সংগঠন বলে ঘোষণা করেছে যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি ও অন্য কয়েকটি দেশ। জাতিসংঘের সংগঠন ইউএনআরডব্লিউএ জানিয়েছে, জাবালিয়া ও রাফা থেকে বেসামরিক মানুষকে সরে যেতে বলায় তারা খুবই উদ্বিগ্ন। এদিকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন এবিসি টেলিভিশনকে বলেছেন, ১০ লাখ মানুষ সেখানে আশ্রয় নিয়েছেন। তাদের সুরক্ষায় কোনো বিশ্বাসযোগ্য পরিকল্পনা ইসরায়েলের নেই।
বিøঙ্কেন বলেন, প্রেসিডেন্ট বাইডেন এটি স্পষ্ট করে দিয়েছেন যে, ইসরায়েল যদি রাফায় বড় ধরনের আক্রমণ করে, তাহলে সেই অপারেশনে ব্যবহার করার মতো সরঞ্জাম ও অস্ত্র আমরা দেব না। বাইডেন ইতোমধ্যেই জানিয়েছেন, তিনি রাফায় ইসরায়েলি হামলা নিয়ে উদ্বিগ্ন। যদি তারা এ হামলা করে যায়, তাহলে তাদের গোলা ও অন্য অস্ত্র সরবরাহ বন্ধ করা হবে। এর আগে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু বলেছিলেন, ইসরায়েল একা লড়াই করার ক্ষমতা রাখে।